বাসস দেশ-২৪ : পলাশ পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন ছিল, বেশিরভাগ সময় বাড়িতে থাকতো না : এসপি

208

বাসস দেশ-২৪
পুলিশ সুপার- ব্রিফিং
পলাশ পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন ছিল, বেশিরভাগ সময় বাড়িতে থাকতো না : এসপি
নারায়ণগঞ্জ, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৯ (বাসস) : চট্টগ্রামে বিমান ছিনতাইয়ের ঘটনায় নিহত পলাশ বেশিরভাগ সময় বাড়িতে থাকতো না, পরিবার থেকে বিচ্ছিন্ন ছিল। তবে সে রাজধানী ঢাকায় বসবাস করতো বলে জানিয়েছেন নারায়ণগঞ্জের পুলিশ সুপার (এসপি) হারুন অর রশিদ।
এসপি সোমবার বিকেল জেলা পুলিশ সুপারের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত এক প্রেস ব্রিফিংয়ে একথা বলেন।
এসপি জানান, তার বাড়ির পাশে সোনারগাঁ উপজেলার তাহেরপুর মাদ্রাসা থেকে সে এসএসসি সমমান পরীক্ষায় পাশ করে। এরপরে আস্তে আস্তে পরিবারের সাথে তার সম্পর্ক কমতে থাকে।
তার বাবা ও চাচারা দেশের বাইরে থাকেন। তাকে দেখাশুনা করার মতো অভিভাবক না থাকায় সে বেশিরভাগ সময় ঢাকায় থাকতো।
এসপি বলেন, পলাশের বাড়ি নারায়ণগঞ্জ জেলার সোনারগাঁ উপজেলার পিরোজপুর ইউনিয়নের দুধঘাটা গ্রামে।
তিনি বলেন, বিমান ছিনতাইয়ের বিশ-পঁচিশ দিন আগে থেকে সে গ্রামের বাড়িতে ছিলো। সে দুবাই যাবার কথা বলে পরিবারের কাছ থেকে বিদায় নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়। দুবাই যাওয়ার জন্য সে তার বাবার কাছ থেকে টাকাও নিয়েছিলো।
তিনি আরও জানান, সে বহুদিন ধরে নিজের কোনো মোবাইল ফোন ব্যবহার করতো না। বাড়িতে গেলে সে তার বোনের মোবাইল ফোন ব্যবহার করতো।
এরআগে সে বিদেশে নেয়ার কথা বলে কিছু মানুষের কাছ থেকে বেশকিছু টাকা নিয়েছিলো বলে অভিযোগ রয়েছে। তার বিরুদ্ধে কোনো অপরাধের নির্দিষ্ট অভিযোগ এখনো পাওয়া যায়নি বলে জানান এসপি।
অনেক আগে নারী সংক্রান্ত একটি অভিযোগ তার বিরুদ্ধে ছিলো বলে এলাকাবাসী পুলিশকে জানিয়েছে।
এক প্রশ্নের জবাবে এসপি বলেন, ‘যদি পলাশের কোনো বিষয়ে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ আমাদের তদন্ত করতে বলে তখন আমরা তার ব্যপারে তদন্ত করবো।’
বাসস/সংবাদদাতা/এফএইচ/১৯৩৬/কেকে