বাসস ক্রীড়া-১৮ : সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে কাল মুখোমুখি পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ড

463

বাসস ক্রীড়া-১৮
ক্রিকেট-টেস্ট
সিরিজ নির্ধারণী ম্যাচে কাল মুখোমুখি পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ড
আবুধাবি, ২ ডিসেম্বর ২০১৮ (বাসস) : প্রথম টেস্ট নিউজিল্যান্ড ও দ্বিতীয় ম্যাচে জয় পায় পাকিস্তান। ফলে পাকিস্তান-নিউজিল্যান্ডের তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজে ১-১ সমতা বিরাজ করছে। এই সমতা নিয়ে আগামীকাল সিরিজ নির্ধারনী ম্যাচে মাঠে নামছে পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ড। শেষ ম্যাচ জিতে সিরিজ জয় নিশ্চিত করতে চায় দু’দলই। আবু ধাবি বাংলাদেশ সময় বেলা ১২টায় শুরু হবে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ টেস্ট।
আবুধাবিতে সিরিজের প্রথম টেস্টে নাটকীয় জয় পায় নিউজিল্যান্ড। মাত্র ৪ রানে জয় তুলে নেয় কিউইরা। দুই ইনিংসে ব্যাট হাতে ১৫৩ ও ২৪৯ রান করে নিউজিল্যান্ড। প্রথম ইনিংসে ২২৭ রান করে ৭৪ রানের লিড পায় পাকিস্তান। তাই ম্যাচ জয়ের জন্য ১৭৬ রানের টার্গেট পায় তারা। কিন্তু ১৭১ রানে অলআউট হয়ে ম্যাচ হারে পাকিস্তান। ফলে সিরিজে ১-০ ব্যবধানে লিড নেয় নিউজিল্যান্ড।
তবে দুবাইয়ে দুর্দান্তভাবে ঘুড়ে দাঁড়ায় পাকিস্তান। ব্যাটসম্যান-বোলারদের নৈপুন্যে ইনিংস ও ১৬ রানে ব্যবধানে ম্যাচ জিতে তারা। ৫ উইকেটে ৪১৮ রান তুলে প্রথম ইনিংস ঘোষনা করে পাকিস্তান। জবাবে প্রথম ইনিংসে ৯০ রানে গুটিয়ে গিয়ে ফলো-অনে পড়ে নিউজিল্যান্ড। তাই ম্যাচের তৃতীয় ইনিংসে ব্যাট হাতে নেমে ৩১২ রান করেও ইনিংস হার এড়াতে পারেনি কিউইরা। ফলে সিরিজে ১-১ সমতা আনতে সক্ষম হয় পাকিস্তান। ফলে সিরিজের তৃতীয় ম্যাচটি এখন অঘোষিত ফাইনালে রুপ নিয়েছে।
তাই শেষ ম্যাচের জয়ী দল জিতে নিবে সিরিজটি। এমন সমীকরণে সিরিজ জয়ের স্বাদ নিতে চায় পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ড দু’দলই। পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদ বলেন, ‘দ্বিতীয় ম্যাচে আমরা আমাদের সামর্থ্য দেখিয়েছি। সিরিজে পিছিয়ে পড়লেও কিভাবে ফিরতে হয় আমরা তা জানি। এমন জয়ের পর দলের সবাই ফুরফুরা মেজাজেই রয়েছে। যা তৃতীয় টেস্ট জয়ে উৎসাহিত করছে আমাদের। তাই আমি আত্মবিশ্বাসী তৃতীয় ম্যাচে আমরা ভালো ফল অর্জন করতে পারবো।’
ম্যাচ ও সিরিজ জয়ের ব্যাপারে আশাবাদি নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনও, ‘আবুধাবিতে সিরিজের প্রথম ম্যাচ আমরা জিতেছিলাম। দুবাইয়ে জিততে পারিনি। তবে আবুধাবির ঐ জয় আমাদের সাহস দিচ্ছে। একই ভেন্যুতে ম্যাচ হওয়াতে আমরা জয়ের ব্যাপারে আশাবাদি। তবে আমাদের সেরা খেলাটা খেলতে হবে। দুবাই ম্যাচে আমরা কোন বিভাগেই ভালো করতে পারিনি। আশা করি শেষ ম্যাচে নিজেদের শুধরে নিতে পারবো।’
সিরিজের তৃতীয় ম্যাচ দিয়ে টেস্ট অভিষেক হতে যাচ্ছে পাকিস্তানী বাঁ-হাতি পেসার শাহিন আফ্রিদির। কাঁেধর ইনজুরির কারনে তৃতীয় ম্যাচে খেলতে পারবেন না আরেক পেসার মোহাম্মদ আব্বাস। তার পরিবর্তে একাদশে সুযোগ পাচ্ছেন আফ্রিদি। ইতোমধ্যে দেশের হয়ে ৬টি ওয়ানডে ও ৭টি টি-২০ খেলেছেন ১৮ বছর বয়সী আফ্রিদি। ওয়ানডেতে ১৩টি ও টি-২০ ১১টি উইকেট নেন তিনি।
গেল সেপ্টেম্বরে পাকিস্তানের ঘরোয়া আসর প্রথম শ্রেনীর ক্রিকেটে অভিষেক হয় আফ্রিদির। খুদ-ই-আজম ট্রফিতে নিজের অভিষেক ম্যাচেই রেকর্ড গড়েন তিনি। ৩৯ রানে ৮ উইকেট নেন আফ্রিদি। পাকিস্তানের প্রথম শ্রেনির ক্রিকেটে অভিষেক ম্যাচে এটিই সেরা বোলিং ফিগার।
বাসস/এএসজি/এএমটি/১৯৩৫/মোজা/স্বব