বাসস দেশ-১৯ : রাজধানী খিলগাঁওয়ের শিশু নিনাদ হত্যার ঘটনায় আরো একজন গ্রেফতার

258

বাসস দেশ-১৯
ডিএমপি-গ্রেফতার
রাজধানী খিলগাঁওয়ের শিশু নিনাদ হত্যার ঘটনায় আরো একজন গ্রেফতার
ঢাকা, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৮ (বাসস) : রাজধানী খিলগাঁওয়ের শিশু নিনাদ হত্যাকান্ডের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে আরো একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) সম্প্রতি রাজধানীর খিলগাঁওয়ের নিজ বাসা থেকে তাকে গ্রেফতার করেছে।
গ্রেফতারকৃত খাদিজা আক্তার রানীকে এরই মধ্যে সংশ্লিষ্ট আদালতে হাজির করা হয়। আদালতের নির্দেশে তাকে জেল-হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
রানী নিনাদ হত্যকা-ের মূল আসামি জহিরুল ইসলাম ল্্্ড্ডুুর স্ত্রী। লুড্ডুকে এর মধ্যেই গ্রেফতার করে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
সম্পত্তি নিয়ে বিরোধের জের ধরে ৮ বছরের শিশু সাফওয়ান আল নিনাদকে হত্যা করা হয়েছে বলে মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়।
নিনাদ রাজধানীর ২১৫/৫ মেরাদিয়ার ভূঁইয়াপাড়ার বাসিন্দা স্বপন বেপারীর পুত্র। সে বনশ্রী ন্যাশনাল আইডিয়াল স্কুলের তিন নম্বর ক্যাম্পাসের প্রথম শ্রেণীর ছাত্র ছিল। গত ১৫ জুন ঈদের আগের দিন রাতে গলায় পলিথিন পেঁচিয়ে তাকে শ^াসরোধ করে হত্যা করা হয়।
ডিবি ডিসি উত্তর খন্দকার নুরুন্নবী বলেন, ‘জমি-জমা নিয়ে বিরোধের জের ধরে এ ঘটনা ঘটে।
গলায় মোড়ানো পলিথিনের সূত্র ধরে হত্যার রহস্য উদঘাটন করে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। শিশুটি ১৫ জুন ঈদুল ফিতরের আগের রাতে খিলগাঁওয়ের বাসা থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হয়। ঈদের দিন দুপুরে একই এলাকায় একটি ভ্যানের ভেতর থেকে নিনাদের লাশ উদ্ধার করা হয়।
ওই দিনই নিনাদের বাবা স্বপন বেপারী বাদি হয়ে অজ্ঞাতদের আসামী করে খিঁলগাও থানায় একটি মামলা করে ।
বাসস/নিজস্ব/এফএইচ/২১০০/-এবিএইচ