যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনৈতিক অবরোধ নীতির নিন্দা জানিয়েছে ইউ

172

ব্রাসেলস, ১৮ জুলাই, ২০২০ (বাসস ডেস্ক) : রাশিয়ার বিতর্কিত নর্ড স্ট্রিম ২ গ্যাস পাইপলাইনের ব্যাপারে ওয়াশিংটন অবরোধ আরোপের পথ উন্মুক্ত করার পরে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের কূটনৈতিক প্রধান যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনৈতিক অবরোধ ব্যবহারের কড়া সমালোচনা করেছেন।
ইউ’র পরারষ্ট্র বিষয়ক প্রধান প্রতিনিধি জোসেপ বোরেল বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্র তাদের শত্রু দেশগুলোর সঙ্গে ইউরোপিয়ান কোম্পানিগুলোর “বৈধ ব্যবসা” সেকেন্ডারি অবরোধ ব্যবহার করে চাপের মধ্যে ফেলেছে।
কোন দেশের বিরুদ্ধে অর্থনৈতিক অবরোধ আরোপের ফলে সেই দেশের সঙ্গে বৈধ ব্যবসা করে এমন বিদেশী কোম্পানিগুলোও পরোক্ষভাবে এই সেকেন্ডারি অবরোধে ক্ষতিগ্রস্ত হয়।
তিনি ইরান, কিউবা এবং আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের বিরুদ্ধে অবরোধের কথা উল্লেখ করে বলেন, বিশ্বব্যাপী কোম্পানি ও ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে অবরোধ আরোপে যুক্তরাষ্ট্রের নীতির সমর্থন করে না ইউরোপিয়ান ইউনিয়ন।
বোরেল এক বিবৃতিতে বলেন, “ইউরোপিয়ান কোম্পানি এবং তাদের স্বার্থের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের অবরোধের ক্রমবর্ধমান ব্যবহারে অথবা অবরোধের হুমকির ব্যাপারে আমি গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।
প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রশাসন যুক্তরাষ্ট্রের আর্থিক ব্যবস্থায় ক্ষতি করতে পারে এমন অভিযোগে নর্ড স্ট্রিম ২ পাইপলাইনের বিরুদ্ধে অবরোধ আরোপের পথ উন্মুক্ত করার দু’দিন পরে বোয়েল এই বিবৃতি দিলেন।
জার্মানি এই পাইপলাইন প্রকল্পের একটি প্রধান অংশীদার, এই পাইপলাইনের মাধ্যমে রাশিয়া থেকে ইউরোপের বৃহত্তম অর্থনীতি জার্মানীতে গ্যাস আমদানি দ্বিগুণ বৃদ্ধি পাবে।
কিন্তু যুক্তরাষ্ট্রের এই পদক্ষেপে এমনকি সামান্য বিনিয়োগেও জার্মান কোম্পানিগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হবে।