বঙ্গবন্ধু বিপিএল : মাশরাফির আক্ষেপ

344

ঢাকা, ২৭ ডিসেম্বর, ২০১৯ (বাসস) : বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) টি-২০ ক্রিকেটের ২১তম ম্যাচে আজ চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের কাছে ৬ উইকেটে হারে মাশরাফি বিন মর্তুজার ঢাকা প্লাটুন। ম্যাচ শেষে নিজ দলের হারের কারণ ব্যাখাসহ মনের মধ্যে লুকিয়ে থাকা আক্ষেপও ঝাড়লেন মাশরাফি।
আজ ব্যাট হাতে ১২ বলে অপরাজিত ১৭ রান করেন মাশরাফি। এরপর বল হাতে ৪ ওভারে ১৪ রানে ১ উইকেটও নেন তিনি। ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে মাশরাফির কাছে প্রশ্ন ছিলো, আপনার কাছে দলের প্রত্যাশা কি? মাশরাফি বলেন, ‘শুধু আমার কাছে কেন, সবার কাছেই সমান আশা থাকে দলের। তবে আমি তো প্রায় অবিক্রীতই থাকি। আমার কাছে আশা করেই-বা কী হবে। আশা করলে তো সবার আগেই বিক্রি হয়ে যাওয়ার কথা।’
মাশরাফির এমন কথার কারন হলো, বঙ্গবন্ধু বিপিএলের নিলামে প্রথম দফায় ‘এ প্লাস’ ক্যাটাগরিতে থাকা মাশরাফিকে কোন দলই কেনেনি। পরে দলের অষ্টম খেলোয়াড় হিসেবে ঢাকা প্লাটুন কিনে নেয় মাশরাফিকে।
এদিকে, ম্যাচ চলাকালীন স্ট্রাইকিং প্রান্ত থেকে বেরিয়ে ব্যাট দিয়ে উইকেটে বাড়ি দিচ্ছিলেন তিনি। আর তখনই মোমিনুল হকের থ্রোতে রান আউট হন ইমরুল। ঢাকার ফিল্ডারদের আবেদনে আম্পায়ার আউট দিতে বাধ্যও হন। কিন্তু ঢাকার অধিনায়ক মাশরাফি প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যান ইমরুলকে ক্রিজেই থাকতে বলেন। পরে ব্যাট হাতে ৫৩ বলে ৫৪ রানের ম্যাচ জয়ী ইনিংস খেলেন ইমরুল।
কিন্তু ইমরুলকে ব্যাট করার কারণ ব্যাখ্যা করে মাশরাফি বলেন, ‘নিয়মানুযায়ী ফিল্ডিং দল চাইলে ওটা আউট নিতে পারে। থার্ড আম্পায়ার সেটা আউট দিতে বাধ্য ছিলো। কিন্তু আমার কাছে মনে হয়েছে, আমরা সিনিয়ররা ওখানে ছিলাম। আমি-তামিম ছিলাম তাই সেই আউটটা নিলে ভালো দেখাত না। যদিও এজন্য ইমরুল আমাকে ধন্যবাদ দেয়নি।’