বাসস ক্রীড়া-২৩ : বোলারদের উপর চাপ না সৃষ্টির অনুরোধ মুশফিকের

158

বাসস ক্রীড়া-২৩
ক্রিকেট-বঙ্গবন্ধু বিপিএল
বোলারদের উপর চাপ না সৃষ্টির অনুরোধ মুশফিকের
চট্টগ্রাম, ২১ ডিসেম্বর, ২০১৯ (বাসস) : চলমান বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) টি-২০ ক্রিকেট টুর্নামেন্টে ব্যাটসম্যানদের পাশাপাশি বোলাররাও দুর্দান্ত পারফর্ম করছে। বিশেষ করে তরুণ বোলাররা। চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মেহেদি হাসান রানা-মুক্তার আলী, খুলনা টাইগার্সের শহিদুল ইসলাম কুমিল্লা ওয়ারিয়র্সের আল-আমিন হোসেন ও রংপুর রেঞ্জার্সের মুকিদুল ইসলাম মুগ্ধ নজর কেড়েছেন। তাই নতুন যারা এবারের আসরে ভালো করছেন, তাদের উপর চাপ সৃষ্টি না করার অনুরোধ করেছেন খুলনা টাইগার্সের অধিনায়ক মুশফিকর রহিম। তরুন বোলারদের চিন্তামুক্তভাবে খেলার কথা জানান তিনি।
মুশফিক বলেন, ‘বিপিএলে এখন অবধি খুব কম ম্যাচ শেষ হয়েছে। এখনও অনেক ম্যাচ আছে। তাদেরকে আরেকটু সুযোগ দেন। তাদেরকে এখনই মাথার উপর তুলে ফেলবেন না। এটা আমার অনুরোধ থাকবে। কারণ দেখেন এই তিন দিন আগেই কিন্তু আমরা এই দল নিয়ে জিতেছি। আজকে কিন্তু ২৩২ রান এই দল নিয়েই হয়েছে। আমার মনে হয় তাদেরকে পরবর্তী দুই তিন বছর স্বাধীনভাবে খেলতে দেন। সামনে বিশ্বকাপ আছে, না কি আছে, এগুলো বলে তাদের ওপড় চাপ সৃস্টি করবেন না। দুই তিন বছর খেলতে দেন, আপনি এমনিই বুঝতে পারবেন কে আসছে না-আসছে। এটা হচ্ছে গুরুত্বপূর্ণ। শুধু টি-২০ না, টেস্ট এবং ওয়ানডেতেও। এখন তাদের স্বাধীনভাবে খেলতে দেন। এখন তাদের উঠতি বয়স। খেলটা উপভোগ তাদেরকে করতে দেন। তাদেরকে ব্যক্তি কেন্দ্রি বানাবেন না। তারা দলের জন্য খেলছে, দলের জন্য খেলতে দেন। তারা যেন দেশ নিয়ে চিন্তা করে সেই সুযোগ দেন। যেন পরিপূর্ণ প্যাকেজ হয়ে আসতে পারে। জাতীয় দলে এসে যেন তাদেরকে আবার ফিরে যেতে না হয়।’
ক্যারিয়ার নিয়ে তরুন বোলারদের ভাবার অনুরোধ করেন মুশফিক, ‘লাইম লাইটে থাকা কিন্তু খারাপ না। তাহলে তাদরও দায়িত্বজ্ঞানটা বাড়বে। তারা চিন্তা করবে, আমি একটা ভালো জায়গায় আসছি, সামনে কিন্তু আমার ভালো জায়গায় যাওয়ার সুযোগ আছে। এমন না যে একটা বিপিএলে ভালো করল বলে একজন ১০-৫ বছর ধরে পারফর্ম করা ক্রিকেটারকে সরায়ে দিয়ে, নিয়ে আসবেন দলে। হতেই পারে একটা বিপিএল কারো জন্য খারাপ যেতেই পারে। মুস্তাফিজের কথা বললে, হয়তো বেস্ট ফর্মে সে এখন নাই। আজ আমি অধিনায়ক না, আপনি যদি আমাকে বলেন বাংলাদেশের এক ওভারে ৪ রান লাগে¬ আমি এখনও মুস্তাফিজকেই বোলিং দিব। ও ফর্মে থাক আর না থাক। সবাই এমনভাবে বলতেছে যে, সে কোথায় না কোথায় চলে গেছে। এটা মোটেও ঠিক না এমন কারো সাথে তরুণদের তুলনা করা।’
তরুণ বোলাররা উঠে আসছে এটা ক্রিকেটের জন্য ভালো দিক বলে মনে করেন মুশফিক, ‘অবশ্যই এটা ভালো লক্ষন যে তরুন পেসার আসছে। কারণ পেস বোলারদের ইনজুরি সবচেয়ে বেশি হয়। তাদের যদি ব্যাক আপ হিসেবে তৈরি করতে পারি তাহলে এটা বাংলাদেশের ক্রিকেটের জন্য অনেক বড় ভালো দিক হবে। আমার মনে হয় এই সময় টুকু তরুণদের দেন এবং যারা এতো বছর ধরে সেবা দিয়ে আসছে তাদেরকে সেই সম্মানটুকু দেন।’
বাসস/এএসজি/এএমটি/২০০০/স্বব