চট্টগ্রাম বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে ৯ জনের মৃত্যুদন্ড

508

চট্টগ্রাম, ১৪ অক্টোবর, ২০১৯ (বাসস) : চট্টগ্রাম বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইবুন্যালে কুমিল্লা জেলার দাউদকান্দি উপজেলার হাটচান্দিনা গ্রামের ব্যবসায়ী জাহাঙ্গীর সরকারকে হত্যার অভিযুক্ত ৯ জনের মৃত্যুদন্ড ও আরো ৪ জনের যাবজ্জীবন কারাদন্ডের আদেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া প্রতিজনের এক লাখ টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে ২ বছর করে কারাদন্ডের আদেশ দেন আদালত।
সোমবার (১৪ অক্টোবর) চট্টগ্রাম বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের ভারপ্রাপ্ত বিচারক মো. আব্দুল হালিম এ রায় দেন। অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় ৩ জনকে বেকসুর খালাস দেওয়া হয়েছে।
চট্টগ্রাম বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালের পিপি ও চট্টগ্রাম জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক আইয়ুব খাঁন জানান, আসামি মো. সজীব, মো. রাজিব, মো. হারুন মিয়া, মো. শাওন, মো. আমিন, মো. রবু, মো. মমিন, আবু তাহের ও মহসিনের ফাঁসির আদেশ দিয়েছেন আদালত। এ ছাড়া মো. মতিন, মো. শাহ পরান, মো. শামিম ও খোকন মিয়ার যাবজ্জীবন কারাদন্ড এবং নয়ন মিয়া, মোছলেম মিয়া ও মো. বিলালকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত।
মামলার সূত্র জানায়, কুমিল্লার দাউদকান্দির গৌরীপুরের হাটচান্দিনা গ্রামের একটি সমাজকে ভেঙ্গে দুটি সমাজ সৃষ্টি করায় স্থানীয়দের মাঝে দুটি গ্রুপে বিভক্তি হয়। এ ঘটনার রেশে ২০১৩ সালের ১ ডিসেম্বর রাতে হাটচান্দিনা গ্রামের মো. ফজল আলীর ছেলে ব্যবসায়ী জাহাঙ্গীর আলম সরকারকে কুপিয়ে হত্যা করেন অভিযুক্তরা। এসময় জাহাঙ্গীর গৌরিপুর এরলাকায় একটি ওয়াজ মাহফিল থেকে বাড়ি ফিরছিলেন। নিহতের পিতা মো. ফজল আলী বাদী হয়ে এঘটনায় ১৬জনকে আসামী করে হত্যা মামলা দায়ের করেন দাউদকান্দি থানায়। পুলিশ ২০১৪ সালের ১৬ মার্চ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। মূলত এলাকায় দুইপক্ষের বিভক্তির ঘটনার প্রতিবাদের জেরে এ হত্যাকা- হয়েছিল। ২০১৫ সালে মামলাটি কুমিল্লা আদালত থেকে চট্টগ্রাম বিভাগীয় দ্রুত বিচার ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তর করা হয়। মামলায় বিভিন্ন সময় ২২ জনের মধ্যে ১৩ জন সাক্ষী তাদের সাক্ষ্য দিয়েছেন।