বাসস দেশ-৩৩ : খাজা মোজাম্মেল হক (র.) ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে বৃত্তি ও সম্মাননা সনদ প্রদান

386

বাসস দেশ-৩৩
কেএমআরএফ-বৃত্তি প্রদান
খাজা মোজাম্মেল হক (র.) ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে বৃত্তি ও সম্মাননা সনদ প্রদান
সিরাজগঞ্জ, ৩ অক্টোবর, ২০১৯ (বাসস) : খাজা মোজাম্মেল হক (র.) ফাউন্ডেশন (কেএমআরএফ)-এর উদ্যোগে জেলার বেলকুচি উপজেলার রাজাপুর উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আজ সকালে মেধাবী ছাত্র-ছাত্রীদের বৃত্তি ও সম্মাননা প্রদান করা হয়েছে।
জেলার ১০৪টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষায় জিপিএ ৫ প্রাপ্ত ৭৫৫ ছাত্র-ছাত্রীকে সম্মাননা এবং অষ্টম ও দশম শ্রেণীর ৪৮৫ মেধাবী ছাত্র-ছাত্রীকে বৃত্তি ও সম্মাননা সনদ প্রদান করা হয়।
ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান খাজা টিপু সুলতান ছাত্র-ছাত্রীদের হাতে সম্মাননা সনদ ও বৃত্তির টাকা তুলে দেন।
উৎসবমুখর এ অনুষ্ঠানে জেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রায় ১ হাজার ২৪০ জন ছাত্র-ছাত্রীসহ শিক্ষক-শিক্ষিকা, অভিভাবক, আমন্ত্রিত অতিথি ও সমাজের বিভিন্ন স্তরের পেশাজীবীরা উপস্থিত ছিলেন।
জেলা প্রশাসক ড. ফারুক আহাম্মদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন ফাউন্ডেশনের উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য ও পাট অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মো. শামসুল আলম।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোসা. আফসানা ইয়াসমিন, জেলা শিক্ষা অফিসার মো. শফী উল্লাহ, বেলকুচি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আনোয়ারুল ইসলাম, রাজাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. নাজমুল হুদা ও বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মো. আব্দুল মান্নান।
অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ফাউন্ডেশনের সচিব জোবায়ের হোসেন, কোষাধ্যক্ষ সোহেল হোসেন ইবনে বতুতা, বৃহত্তর ময়মনসিংহ অঞ্চলের প্রধান সমন্নয়কারী মোহাম্মদ আলী, বৃহত্তর উত্তর অঞ্চলের প্রধান সমন্নয়কারী আনসার আলী খান জয়, বৃহত্তর সিলেট অঞ্চলের প্রধান সমন্নয়কারী আরমান খান, বৃহত্তর ঢাকা অঞ্চলের প্রধান সমন্নয়কারী মেজবাউল আলম রিপন ও উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্যবৃন্দ।
দেশের খ্যাতনামা সংগীত শিল্পী ফেরদৌস ওয়াহিদের সুরের মূর্ছনায় উপস্থিতি ছাত্র-ছাত্রীদের আনন্দে মাতিয়ে রাখে। মেধাভিত্তিক খেলার অনুষ্ঠান মেধায় মাতি পর্বটি ছিল অনুষ্ঠানের অন্যতম আকর্ষণ।
২০০১ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক, অলাভজনক, মানব কল্যাণমূলক প্রতিষ্ঠান খাজা মোজাম্মেল হক্ (র.) ফাউন্ডেশন। প্রতিষ্ঠার পর থেকে দু’টি চিকিৎসা সেবা কেন্দ্রের মাধ্যমে সারা বছর বিনামূল্যে চিকিৎসাপত্র প্রদান, সিরাজগঞ্জ জেলার উচ্চ মাধ্যমিক, মাধ্যমিক ও নি¤œ মাধ্যমিক বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মেধাবী ছাত্র-ছাত্রীদের বৃত্তি ও সম্মাননা প্রদান এবং শুধুমাত্র খাজা শাহ্ ইউনুছ আলী এনায়েতপুরী (র.)’র নেছবতভূক্ত অস্বচ্ছল কর্মক্ষম ভক্তবৃন্দের মধ্যে ‘ ছাদকা-ই-জারিয়া ’ হিসেবে এককালীন মূলধন প্রদান করে আসছে।
বাসস/সবি/এমএএস/২০৩৫/-আরজি