সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কুলখানী অনুষ্ঠিত

558

ঢাকা, ১৭ জুলাই, ২০১৯ (বাসস) : জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান, জাতীয় সংসদে বিরোধী দলীয় নেতা ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের কুলখানী আজ বাদ আছর গুলশান আজাদ মসজিদে অনুষ্ঠিত হয়েছে।
কুলখানীতে সদ্য প্রয়াত এরশাদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে মোনাজাত করা হয়।
কুলখানীতে পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান ও জাতীয় সংসদে বিরোধী দলীয় উপনেতা বেগম রওশন এরশাদ এমপি, রাহাগির আল মাহি (সাদ এরশাদ), এরিক এরশাদসহ পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।
জাতীয় পার্টির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান গোলাম মোহাম্মদ (জি এম) কাদের এমপি পরিবারের পক্ষ থেকে বলেন, হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের জানাজায় লাখো মানুষ অংশ নিয়ে প্রমাণ করেছে পল্লীবন্ধুর প্রতি তাদের ভালোবাসা।
তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রতি মুহূর্তে হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের শারীরিক অবস্থার খোঁজ নেওয়ায় তাঁর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।’ এছাড়া সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালের চিকিৎসকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন জি এম কাদের। হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের জন্য দোয়া করায় দেশবাসীর প্রতিও তিনি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।
আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য তোফায়েল আহমেদ, সাবেক ছাত্রনেতা নূর-ই আলম সিদ্দিকী, আওয়ামী লীগের সভাপতিমন্ডলীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম এমপি, সাবেক চীফ হুইপ আ.স.ম. ফিরোজ এমপি, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান এমপি, সাবেক পানি সম্পদ মন্ত্রী এবিএম গোলাম মোস্তফা, সাবেক ধর্ম প্রতিমন্ত্রী নাসিম উদ্দিন আল আজাদ, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের পরিচালক ডা. জাফর উল্লাহ চৌধুরী, জেপি সাধারণ সম্পাদক শেখ শহিদুল ইসলাম প্রমুখ এতে শরীক হন।
এছাড়াও জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা, পার্টির নেতা ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, এবিএম রহুল আমিন হাওলাদার, কাজী ফিরোজ রশীদ এমপি, জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবুল, সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি, মুজিবুল হক চুন্নু এমপিসহ জাতীয় পার্টির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মীরা কুলখানীতে অংশ নেন।